1. mohib.bsl@gmail.com : admin : Md Mohibbullah
  2. editor@barisalerkhobor.com : editor :
রবিবার, ২১ জুলাই ২০২৪, ১০:১০ পূর্বাহ্ন

বিপদে এখনো মাহমুদউল্লাহই ভরসা

  • Update Time : শনিবার, ১৫ জুন, ২০২৪
  • ১২ Time View

টপ অর্ডাররা যেদিন খেলা গড়ে দিয়ে যান সেদিন ফিনিশারদের কাজটা হয়ে যায় সহজ। চাপ মুক্ত হয়ে শেষ দিকে দলের সংগ্রহটাকে একটা শক্ত ভিত গড়ে দিয়ে আসেন তারা। তবে বাংলাদেশের মতো মাঝারি মনের দলে এমনটা নিয়মিত চোখে পড়ে না। শুরুতে দ্রুত উইকেট হারানোর ঘটনা অনেকটা নিয়মিতই বলা চলে।

স্বাভাবিকভাবেই তাই শুরুতে মন দিতে হয় উইকেট বাঁচানোতেই, ইনিংস গড়ায়; আর টেলেন্ডার নিয়ে খেলাটা শেষ করে আসায়। যা বেশ কঠিন বটে। টেলেন্ডারদের নিয়ে এমন কাজ নিয়মিতই করতে হচ্ছে মাহমুদউল্লাহকে। আর সেই কাজ করতে গিয়ে মাঝে মাঝেই ব্যর্থও হতে হচ্ছে তাকে। শুনতে হচ্ছে সমালোচনাও। এই যেমন চলতি বিশ্বকাপের প্রথম ম্যাচে শ্রীলংকার বিপক্ষে পারলেও পারেননি দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে। যা নিয়ে উঠেছে প্রশ্ন। যেন ম্যাচ শেষ করে আসার দায়িত্বটা কেবলই মাহমুদউল্লাহর।

অবশ্য অন্যদিকে তাকানোর সুযোগই তো নেই সমর্থকদের। দিনশেষে ৩৮ বছরের একজনের ওপরই নির্ভর করতে হচ্ছে বাংলাদেশ দলকে।  এখনও মাহমুদউল্লাহর ওপরই নির্ভর করছে দল। শেষটা তিনি রাঙাতে পারলেই, ম্যাচ শেষ করে আসতে পারলেই হাসি ফুটছে সমর্থকদের মধ্যে। যা দীর্ঘ ক্যারিয়ারের পড়ন্ত বেলায়ও হাসিমুখে করে যাচ্ছেন মাহমুদউল্লাহ। দায়টা নিচ্ছেন নিজের কাঁধেই। দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ছক্কা হাঁকাতে গিয়ে বাউন্ডারিতে আউট হওয়ার পর মাহমুদউল্লাহর মাথায় হাত দেওয়া, বলছিল সে কথাই। অবশ্য পরের ম্যাচে ঠিকই ফের দায়িত্ব নিয়েছেন। নেদারল্যান্ডসের বিপক্ষে সাকিবের সঙ্গে নেমে ২৫ রানের ইনিংস খেলে দলকে রেখে গেছেন ভালো অবস্থানে। যা পরবর্তীতে লড়াকু পুঁজি পাইয়ে দিয়েছিল বাংলাদেশকে।

এই বিশ্বকাপে মাহমুদউল্লাহই বাংলাদেশের অন্যতম কাণ্ডারি। যার ওপর নির্ভর করছে বাংলাদেশের সাফল্য। অথচ এই মাহমুদউল্লাহকে সবশেষ বিশ্বকাপে বিবেচনা করেনি দল। সেখান থেকে ঘুরে দাঁড়িয়ে এই বিশ্বকাপে তিনিই এখন বাংলাদেশর আস্থার নাম। হয়তো নিজের শেষ বিশ্বকাপটাই খেলে ফেলছেন মাহমুদউল্লাহ। সত্যিই যদি এমনটি হয়, আচমকা বিশ্বকাপের শেষ ম্যাচে বিদায় বলে দেন মাহমুদউল্লাহ! কিংবা আরও দুয়েকটা সিরিজ, তাহলে শেষদিকে কার ওপর তাকিয়ে টিভিতে চোখ রাখবে সমর্থকরা? কে বিপদে হাল ধরে দলকে এমন টেনে তুলবে বারবার? হয়তো কেউ আসবে, তবে লম্বা সময় যে এই মাহমুদ উল্লাহকে মিস করবে বাংলাদেশের ক্রিকেট সমর্থকরা- সেটা নিশ্চিত করেই বলা যায়।

আপনার সামাজিক মিডিয়া এই পোস্ট শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর..
© All rights reserved ©
Theme Customized By BreakingNews
Optimized by Optimole