1. admin@barisalerkhobor.com : admin : Md Mohibbullah
  2. editor@barisalerkhobor.com : editor :
বুধবার, ২১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৪:৩৯ পূর্বাহ্ন

বিদেশি যোদ্ধা ও পরিবারকে নাগরিকত্ব দেবে রাশিয়া

  • Update Time : শনিবার, ৬ জানুয়ারী, ২০২৪
  • ৪১ Time View

ইউক্রেনে রাশিয়ার পক্ষে লড়াই করা বিদেশি যোদ্ধা ও তাদের পরিবারকে নাগরিকত্ব দেওয়ার প্রস্তাবে অনুমোদন দিয়েছেন দেশটির প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন। বৃহস্পতিবার এ বিষয়ে একটি ডিক্রি জারি করেছেন তিনি।

ডিক্রিতে বলা হয়েছে, ইউক্রেনে বিশেষ সামরিক অভিযানে লড়াইয়ের জন্য যারা চুক্তিবদ্ধ হয়েছেন তারা নিজেদের ও সঙ্গী, সন্তান এবং বাবা-মায়ের রুশ পাসপোর্টের জন্য আবেদন করতে পারবেন। তাদের অবশ্যই প্রমাণ দেখাতে হবে যে, তারা ন্যূনতম এক বছর ধরে চুক্তিবদ্ধ আছেন। এতে আরও বলা হয়েছে, রাশিয়ার নিয়মিত সেনাবাহিনী বা অপর সামরিক কাঠামোর সঙ্গে চুক্তিবদ্ধ যোদ্ধাদের রুশ পাসপোর্ট পাওয়ার জন্য যোগ্য বিবেচনা করা হবে।

রয়টার্সের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, সামরিক অভিজ্ঞতা থাকা বিদেশিদের রুশ বাহিনীতে নিয়োগে উৎসাহিত করতে এই পদক্ষেপ হয়তো নেওয়া হয়েছে।

ইউক্রেনের চলমান যুদ্ধকে রাশিয়া নিজেদের বিশেষ সামরিক অভিযান হিসাবে উল্লেখ করে। যুদ্ধে সেনাদের প্রাণহানির কথা প্রকাশ করেনি মস্কো। এমনকি ইউক্রেনে তাদের হয়ে কতজন বিদেশি যোদ্ধা লড়াই করছে, সেই সংখ্যাও প্রকাশ করেনি।

যুক্তরাষ্ট্রের ফাঁস হওয়া এক নথির পর্যালোচনা অনুসারে ইউক্রেনে চলমান যুদ্ধে রাশিয়ার ৩ লাখ ১৫ হাজার সেনা নিহত ও আহত হয়েছেন।

ইউক্রেনে উত্তর কোরিয়ার ক্ষেপণাস্ত্র ছুড়ছে রাশিয়া-যুক্তরাষ্ট্র : উত্তর কোরিয়া থেকে প্রাপ্ত স্বল্পপাল্লার ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র (এসআরবিএম) ইউক্রেনে ছুড়ছে রাশিয়া।

বৃহস্পতিবার গোপন গোয়েন্দা তথ্যের বরাত দিয়ে এ দাবি করেছে হোয়াইট হাউজ। দেশটির জাতীয় নিরাপত্তা কাউন্সিলের মুখপাত্র জন কিরবি গতকাল সাংবাদিকদের বলেন, জাতিসংঘে নিরাপত্তা পরিষদের বৈঠকে বিষয়টি উত্থাপন করবে যুক্তরাষ্ট্র। কিরবি রাশিয়ার কাছে উত্তর কোরিয়ার অস্ত্র সরবরাহকে ‘উদ্বেগজনক’ বলে অভিহিত করে বলেছেন, অস্ত্র চুক্তিতে সহায়তাকারীদের বিরুদ্ধে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র আরও নিষেধাজ্ঞা আরোপ করবে। এএফপি।

মস্কো এবং পিয়ংইয়ং উভয়ই যুক্তরাষ্ট্রের দাবি করা এই অস্ত্র চুক্তি করার কথা অস্বীকার করেছে। তবে গত বছর রাশিয়া এবং উত্তর কোরিয়া সামরিক সম্পর্ক আরও গভীর করার অঙ্গীকার করেছিল। গত নভেম্বরে উত্তর কোরিয়া একটি অস্ত্র চুক্তির অংশ হিসাবে রাশিয়াকে এসআরবিএম সরবরাহ করেছে। ট্যাংক বিধ্বংসী, বায়ুবিরোধী ক্ষেপণাস্ত্র, মর্টার শেল, কামান ও রাইফেলও তখন সরবরাহ করা হয়।

উত্তর কোরিয়ার আনুষ্ঠানিক নাম ব্যবহার করে জন কিরবি বলেন, ‘আমাদের কাছে যে তথ্য আছে তা ইঙ্গিত করে- ডেমোক্রেটিক পিপলস রিপাবলিক অব কোরিয়া সম্প্রতি রাশিয়াকে কয়েকটি ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র ও ক্ষেপণাস্ত্র উৎক্ষেপক সরবরাহ করেছে।’ তিনি বলেন, ‘গত ৩০ ডিসেম্বর রুশ বাহিনী উত্তর কোরিয়ার দেওয়া ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্রগুলোর মধ্যে অন্তত একটি ইউক্রেনে উৎক্ষেপণ করেছে। তারপর গত মঙ্গলবার ভারী আক্রমণের অংশ হিসাবে রাশিয়া উত্তর কোরিয়ার দেওয়া একাধিক ক্ষেপণাস্ত্র ইউক্রেনে ছুড়েছে। প্রায় দুই বছর আগে শুরু হওয়া যুদ্ধে সম্প্রতি ইউক্রেনের বিরুদ্ধে আক্রমণের মাত্রা বাড়িয়েছে রাশিয়া।

কিয়েভ গত মঙ্গলবার বলেছে, রাশিয়া গত শুক্রবার থেকে ইউক্রেনের শহরগুলোয় ৩০০টিরও বেশি ড্রোন এবং বিভিন্ন ধরনের ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ করেছে। জন কিরবি আরও বলেন, চলমান যুদ্ধে সামরিক সহায়তা নিয়ে ইউক্রেনের পাশে দাঁড়াতে মার্কিন কংগ্রেসকে দ্রুত পদক্ষেপ নিতে হবে। বর্তমান প্রেক্ষাপটে আশা করা হচ্ছে, সহায়তা প্রস্তাব দ্রুত পাশ করাতে হবে। রাশিয়ার হামলা ঠেকাতে ইউক্রেনের জন্য আকাশ প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা সরবরাহ অগ্রাধিকার তালিকায় ছিল বলে মন্তব্য করেছেন জন কিরবি।

আপনার সামাজিক মিডিয়া এই পোস্ট শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর..
© All rights reserved ©
Theme Customized By BreakingNews
Optimized by Optimole