1. admin@barisalerkhobor.com : admin : Md Mohibbullah
  2. editor@barisalerkhobor.com : editor :
শুক্রবার, ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১২:২৫ পূর্বাহ্ন

হেভিওয়েট প্রার্থীদের পাশাপাশি মাঠে ছিলেন তাদের স্ত্রীরাও

  • Update Time : শুক্রবার, ৫ জানুয়ারী, ২০২৪
  • ২২ Time View

দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সারা দেশে প্রার্থীদের পাশাপাশি প্রচারে সোচ্চার থাকতে দেখা গেছে প্রাথীদের স্ত্রীদেরও। তারা মূলত নারী ভোটারদের টার্গেট করে বিভিন্ন উন্নয়নের ফিরিস্তি তুলে ধরছেন। এরই অংশ হিসেবে নারায়ণগঞ্জের পাঁচটি আসনেও হেভিওয়েট প্রার্থীদের নির্বাচনি প্রচারে তাদের স্ত্রীদেরও মাঠ চষে বেড়াতে দেখা গেছে।

বৃহস্পতিবার শেষ নির্বাচনি প্রচারে স্বামীর পক্ষে উন্নয়নের ফিরিস্তি ও নানা প্রতিশ্রুতি তুলে ধরে ভোট চেয়েছেন তারা। বিশেষ করে নারী ভোটারদের টার্গেট করে সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত চলেছে তাদের গণসংযোগ, প্রচারপত্র বিলি ও উঠানবৈঠক।

ফলে ভোটের মাঠে প্রার্থীদের স্ত্রীদের ভোট প্রার্থনা নতুন মাত্রা যুক্ত করেছে নির্বাচনি প্রচারে। তবে সব কিছুর নেপথ্যে রয়েছে ভোটের দিন নারী ভোটারদের উপস্থিতি বাড়ানো।

ফতুল্লা-সিদ্ধিরগঞ্জ আসনের সংসদ সদস্য একেএম শামীম ওসমান প্রতীক বরাদ্দ পাওয়ার পর থেকে তার নির্বাচনি এলাকা চষে বেড়িয়েছেন তার স্ত্রী জেলা মহিলা সংস্থার চেয়ারম্যান সালমা ওসমান লিপি। প্রতিদিন শিডিউল মেইনটেইন করে সকাল-বিকাল দুই বেলা গণসংযোগ ও উঠানবৈঠক করেন তিনি। তার বক্তব্যে দুটি দিক প্রাধান্য পেয়েছে। একটি হলো— তার স্বামীর করা উন্নয়ন। দ্বিতীয়টি হলো— ভোটকেন্দ্রে নারী ভোটারের উপস্থিতি বাড়ানো।

রূপগঞ্জ আসনে আওয়ামী লীগের মনোনীত নৌকার প্রার্থী বস্ত্র ও পাটমন্ত্রী গোলাম দস্তগীর গাজীকে ভোটযুদ্ধে বিজয়ী করার জন্য প্রচারে নামেন তার স্ত্রী তারাব পৌরসভার মেয়র হাসিনা গাজী।
গোলাম দস্তগীর গাজী একদিকে প্রচারে গেলে, অন্যদিকে গেছেন হাসিনা গাজী। সকাল থেকে বিকাল পর্যন্ত রূপগঞ্জ উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় গণসংযোগ, প্রচারপত্র বিলি ও উঠানবৈঠক করেছেন তিনি।

এ সময় ভোটারদের হাসিনা গাজী বলেন, তার স্বামী গত ১৫ বছর ধরে তিনবারের সংসদ সদস্য। দীর্ঘ এই সময়ে তিনি রূপগঞ্জে ব্যাপক উন্নয়ন করেছেন। উপজেলার এমন কোনো জায়গা নেই, যেখানে উন্নয়নের ছোঁয়া লাগেনি। তাই উন্নয়নের ধারাবাহিকতা ধরে রাখতে আবারও তার স্বামী গোলাম দস্তগীর গাজীকে ভোট দেওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন তিনি।

একই আসনে গোলাম দস্তগীর গাজীর প্রতিদ্বন্দ্বী তৃণমূল বিএনপির মহাসচিব ও দলের মনোনীত প্রার্থী তৈমূর আলম খন্দকারের পক্ষে নির্বাচনি প্রচারে দিনরাত শ্রম দিয়েছেন তার স্ত্রী ফারজানা হালিমা। তবে তিনি আলাদাভাবে প্রচারে না গেলেও প্রচারের সময় স্বামীর পাশে থেকেছেন।

আড়াইহাজার আসনে আওয়ামী লীগের মনোনীত নৌকার প্রার্থী নজরুল ইসলাম বাবুর স্ত্রী আড়াইহাজার উপজেলা হাসপাতালের স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. সায়মা আফরোজ ইভা সরকারি কর্মকর্তা হয়েও স্বামীকে বিজয়ী করতে ভোটের মাঠে ছিলেন।

সোনারগাঁও আসনে আওয়ামী লীগের মনোনীত নৌকার প্রার্থী আব্দুল্লাহ আল কায়সার হাসনাতের নির্বাচনি প্রচারে নারীদের নিয়ে প্রতিদিন পর্যায়ক্রমে সোনারগাঁও উপজেলা চষে বেড়িয়েছেন তার স্ত্রী রুবিয়া সুলতানা। গণসংযোগ, প্রচারপত্র বিলি ও উঠানবৈঠক করেছেন তিনি।

ভোটারদের রুবিয়া সুলতানা বলেন, ২০০৮ সালের নবম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে তার স্বামী এই আসনে সংসদ নির্বাচিত হওয়ার পর পাঁচ বছর সোনারগাঁওয়ে ব্যাপক উন্নয়ন করেছেন। তাই আবারও তার স্বামীকে ভোট দেওয়ার জন্য ভোট প্রার্থনা করেন।

একই আসন থেকে দুবারের নির্বাচিত সংসদ সদস্য ও জাতীয় পার্টি মনোনীত লাঙ্গল প্রতীকের প্রার্থী লিয়াকত হোসেন খোকাকে আবারও ভোটের লড়াইয়ে বিজয়ী করতে সকাল থেকে রাত পর্যন্ত গণসংযোগ, প্রচারপত্র বিলি ও উঠানবৈঠক করেছেন তার স্ত্রী সোনারগাঁও উপজেলা জাতীয় মহিলা পার্টির উপদেষ্টা ডালিয়া লিয়াকত। গত ১০ বছরে সোনারগাঁয়ে উন্নয়নের চিত্র তুলে ধরে সেই উন্নয়নের ধারাবাহিকতা বজায় রাখতে আবারও তার স্বামীকে ভোট দেওয়ার জন্য ভোটারদের দ্বারে দ্বারে গেছেন তিনি।

সদর-বন্দর আসনে একেএম শামীম ওসমানের বড়ভাই দুই বারের নির্বাচিত সংসদ সদস্য জাতীয় পার্টির মনোনীত লাঙ্গল প্রতীকের প্রার্থী মুক্তিযোদ্ধা সেলিম ওসমানের স্ত্রী নাসরিন ওসমানের সরব উপস্থিতি দেখা গেছে নির্বাচনি মাঠে। তবে তিনি আলাদাভাবে কোনো প্রচারে যাননি। সেলিম ওসমানের সঙ্গে প্রচারে ছিলেন তিনি।

আপনার সামাজিক মিডিয়া এই পোস্ট শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর..
© All rights reserved ©
Theme Customized By BreakingNews
Optimized by Optimole