1. mohib.bsl@gmail.com : admin :
  2. h.m.shahadat2010@gmail.com : Barisalerkhobor : Barisalerkhobor
রবিবার, ০৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০৪:১৪ পূর্বাহ্ন

বিশ্ব ইজতেমা সফল হোক : বিশ্ব ব্যাপী ছড়িয়ে পড়ুক শান্তির অমীয় বাণী

  • Update Time : বৃহস্পতিবার, ১৯ জানুয়ারী, ২০২৩
  • ৬৪২ Time View

মাওলানা শেখ মুহাম্মাদ আবু জাফর

বাংলাদেশ সহ সারা বিশ্বের তাবত মুসলিম জনতার দৃষ্টি এখন মাওলানা আবদুল আজিজ (রহ.) এর তত্ত্বাবধানে তাবলীগ জামাতের কাকরাইল মার্কাজ কর্তৃক প্রতিষ্ঠিত বিশ্ব ইজতেমার দিকে। আগামীকাল শুক্রবার (২০ জানুয়ারি) ফজর বাদ মূল বয়ানের মধ্য দিয়ে শুরু হতে যাচ্ছে টঙ্গী তুরাগ পাড়ের বিশ্ব ইজতেমা। ইজতেমায় যোগ দিতে বুধবার বিকেল থেকেই ধর্মপ্রাণ মুসল্লিরা বিশ্ব ইজতেমা ময়দানে আসা শুরু করেছেন। বাস, ট্রাক, ট্রেন, পিকআপে চড়ে, পায়ে হেঁটে মুসল্লিদের জনস্রোত এখন টঙ্গী মুখী। কেহ শরীক হচ্ছেন, কেহ আঞ্জাম দিচ্ছেন, কেহ উপস্থিত হতে না পারার মনোবেদনায় আফসোস করছেন, কেহ বিশ্ব ইজতেমার কামিয়াবির জন্য দোয়া করছেন, আবার অনেকে সিয়াম পালন করছেন। সকলের একটাই উদ্দেশ্য বিশ্ব ইজতেমা সফল হোক, হেদায়েতের হাওয়া প্রবাহিত হোক পৃথিবীর দিকে দিকে।

আজ বৃহস্পতিবার (১৯ জানুয়ারি) ফজরের নামাজের পর ভারতের মাওলানা চেরাব উদ্দিন বিশ্ব ইজতেমায় আসা মুসল্লিদের উদ্দেশে বয়ান করেছেন। সেটি বাংলায় তর্জমা করেন মাওলানা আজিম উদ্দীন। মূলত এই বয়ানের মাধ্যমেই অনানুষ্ঠানিক ভাবে শুরু হয়েছে বিশ্ব ইজতেমার আমল।বৃহস্পতিবার সকাল ১০টা থেকে বয়ান করেন আরব দেশ থেকে আসা মাওলানা ওসমান। ইংরেজি ভাষার মেহমানদের সামনে বয়ান করেন মাওলানা এনাম ও খসরু মিয়া। মালয়েশিয়া থেকে আসা মেহমানদের সামনে কথা বলেন মাওলানা ফারুক ও মাওলানা ওমর মেওয়াতি। ফারসি ওলামাদের সামনে বয়ান করেন মুফতি গোলাম নবী ও মুফতি জহির নিজামুদ্দিন। থাই মেহমানদের সামনে কথা বলেন মাস্টার হারুন ও সাঈদী নিজামুদ্দিন। চীন থেকে আসা মেহমানদের সামনে কথা বলেন মাওলানা জামশেদ ও বাংলাদেশের মাওলানা আব্দুল্লাহ এবং পশ্চিমবঙ্গের মেহমানদের সঙ্গে কথা বলেন কাকরাইলের মাওলানা মোশারেফ হোসেন । দুপুর ১২টা ১৫ মিনিটের ইজতেমার মূল মাশওয়ারা করা হয়েছে।রবিবার (২২ জানুয়ারি) আখেরি মোনাজাতের আগ পর্যন্ত চলবে তাবলীগের ছয় উশুলের বয়ান। বাংলাদেশ ভারত ও পাকিস্তানের আলেমরা মূল বয়ান করবেন। মূল বয়ান বাংলাসহ বিভিন্ন ভাষা-ভাষীদের জন্য তাৎক্ষণিক তর্জমা করা হয়। রবিবার আখেরি মোনাজাতের আগে হেদায়েতি বয়ান শেষে আখেরি মোনাজাত হবে।

তাবলীগের শুরা সদস্যদের মাশওয়ারা অনুযায়ী বিশৃঙ্খলার কারণে এবং অনুমতি না থাকায় ২০১৯ সাল থেকে বিশ্ব তাবলীগ জামাতের আমীর ভারতের দিল্লি নিজামুদ্দীনের হাফেজ মাওলানা সা’দ কান্ধলভী বাংলাদেশে বিশ্ব ইজতেমায় যোগ দিচ্ছেন না। তবে তার ছেলে মাওলানা ইউসুফ, মাওলানা সাঈদ, মাওলানা ইলিয়াস ও জামাতা মাওলানা হাসান বৃহস্পতিবার দুপুরে টঙ্গীর বিশ্ব ইজতেমা মাঠে এসে পৌঁছেছেন।

বিশ্ব ইজতেমার মূল পর্ব শুক্রবার ২০ জানুয়ারি থেকে শুরু হওয়ার কথা থাকলেও বুধবার থেকেই দলে দলে মুসল্লিরা ইজতেমা মাঠে এসে অবস্থান নিয়েছেন। মুসল্লিরা দল বেঁধে মাঠের ভেতরে ঢুকে নিজ নিজ জেলার খিত্তায় অবস্থান নিতে শুরু করেছেন। লাখ লাখ মুসল্লির উপস্থিতিতে ইজতেমা মাঠ প্রায় পূর্ণ হয়ে গেছে। আগামীকাল শুক্রবার দেশের সর্ব বৃহৎ জুমুয়ার নামাজের জামাত অনুষ্ঠিত হবে বিশ্ব ইজতেমা ময়দানে।

মাওলানা শেখ মুহাম্মাদ আবু জাফর
shekhabouzafor@yahoo.com

নিউজটি শেয়ার করুন

এ ক্যাটাগরির আরো নিউজ
© All rights reserved © 2023
Theme Customized By BreakingNews
WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com